মানসম্মত বীজ ব্যবহার করে যে কোন ফসলের ফলন প্রায় শতকরা ২০ ভাগ বেশি পাওয়া যায়

এগ্রিলাইফ প্রতিনিধি:শুধুমাত্র মানসম্মত বীজ ব্যবহার করে যে কোন ফসলের ফলন প্রায় শতকরা ২০ ভাগ বেশি পাওয়া যায়। তাই মানসম্মত ডাল, তৈল ও মসলা বীজ কৃষক পর্যায়ে সময়মত সরবরাহ নিশ্চিত করার জন্য প্রকল্পটির আওতায় ইউনিয়ন পর্যায়ে সব ধরণের কারিগরি সহায়তা দিয়ে বীজ উৎপাদক তৈরি করা হচ্ছে।

সোমবার (০১ এপ্রিল) গাইবান্ধা সদর উপজেলা কৃষি দপ্তরের উদ্যোগে বাটকামারী চরে কৃষক পর্যায়ে ডাল, তৈল ও মসলা বীজ উৎপাদন, সংরক্ষণ ও বিতরণ প্রকল্প (৩য় পর্যায়) এর উদ্যোগে মাঠ দিবস ও রিভিউ আলোচনায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন গাইবান্ধা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরে সদ্য যোগদানকৃত উপ পরিচালক কৃষিবিদ এস. এম. ফেরদৌস।

কামারজানী মার্চেন্টস উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ ফারুকুল ইসলামের সভাপতিত্বে মাঠ দিবসে আরো বক্তব্য রাখেন ব্লকের এস এম ই সদস্য আঃ জলিল, রাজস্ব অর্থায়নে বাদাম প্রদর্শনী স্থাপনকারী বাবুল মিয়া, জেলা বীজ প্রত্যয়ন অফিসার কৃষিবিদ মোঃ  মঞ্জুরুল হক, উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ আল ইমরান, উপ-সহকারী কৃষি অফিসার মকবুল হোসেন, কামারজানী ইউপি সচিব আঃ ওহাব ও সাংবাদিক সাদ্দাম হোসেন পবন প্রমুখ।

কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার কৃষিবিদ মোঃ মোশাররফ হোসেন সমগ্র অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন।

escort izmir