টাঙ্গাইলের সদরের কাকুয়ায় উচ্চফলনশীল বারি খেসারী-৩ এর উপর মাঠ দিবস ও কৃষক প্রশিক্ষণ

কে এস রহমান শফি, টাঙ্গাইল : টাঙ্গাইলের সদর উপজেলার কাকুয়া ইউনিয়নের ওমরপুর গ্রামে বারি উদ্ভাবিত উচ্চফলনশীল বারি খেসারী-৩ এর আধুনিক উৎপাদন কলাকৌশল শীর্ষক মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়। আজ বুধবার বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউটের সরেজমিন গবেষণা বিভাগ, টাঙ্গাইল ও ডাল গবেষণা উপ-কেন্দ্র’র সহযোগীতায় এই মাঠ দিবসের আয়োজন করা হয়।

টাঙ্গাইলের সরেজমিন গবেষণা বিভাগের ঊর্ধ্বতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. মোঃ আমীনূর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ডাল গবেষণা উপ-কেন্দ্র গাজীপুর এর প্রকল্প পরিচালক ও প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. মোঃ ওমর আলী ও বিশেষ অতিথি ছিলেন ডাল গবেষণা উপ-কেন্দ্র’র ঊর্ধ্বতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা এ. কে. এম. মাহবুব উর রহমান। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন টাঙ্গাইল সরেজমিন গবেষণা বিভাগের বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা সমরেশ রায়।

পরে কৃষকদের নিয়ে বারি উদ্ভাবিত উচ্চফলনশীল বারি খেসারী-৩ জাতের উৎপাদন প্রযুক্তি ও জাতের বৈশিষ্ট্য এবং বিস্তার কর্মসূচী নিয়ে প্রশিক্ষণ কর্মশালা ঢেকিয়াবাড়ি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়।। প্রকল্প পরিচালক বলেন, এ জাতের খেসারী রোগ-বালাই সহনশীল এবং স্থানীয় জাতের চেয়ে বেশী ফলন দিয়ে থাকে কাজেই এই জাত আবাদ করে কৃষক বেশী লাভবান হবে। খেসারী চাষী আবদুল মজিদ মোল্লা বলেন, এ জাতের খেসারীর দানা বড় ও গাছ প্রতি পডের সংখ্যা স্থানীয় জাতের চেয়ে অনেক বেশি, গাছের শাখা-প্রশাখা বেশি হওয়ায় ফলন বেশি। আগামীতে তারা এই জাতের খেসারী আবাদ করতে আগ্রহী এবং এ জাতের বীজ তারা যেন যথাসময়ে পায় তার ব্যবস্থা করার জন্য কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ করেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন স্থানীয় উপ সহকারি কৃষি কর্মকর্তা আলহাজ্জ মো. আশরাফুল আলম, স্থানীয় ইউপি সদস্য মো. আবদুল খালেক।

escort izmir