নারিকেল গাছে কান্ডের রস/আঠা ঝরা রোগ

ড. কে, এম, খালেকুজ্জামান:নারিকেল গাছে কান্ডের রস/আঠা  ঝরা রোগটি সেরাটোসিসটিস প্যারাডোক্সা (Ceratocystis paradoxa) নামক ছত্রাকের আক্রমনে হয়ে থাকে। শীতের মৌসুমে রোগের ব্যাপকতা বাড়ে ও পোকার দ্বারা বিস্তার ঘটে। নাইট্রোজেনের আধিক্যও রোগের প্রকোপ বাড়াতে সহায়তা করে।

রোগের লক্ষণ:
●রোগের আক্রমণে গাছের কান্ডের যে কোন স্থানে ফাটল ধরে।
●ফাটল বা ক্ষতস্থান দিয়ে অনবরত লালচে বাদামী রংয়ের রস নির্গত হয়।
●এই রস পরবর্তীতে শুকিয়ে যায় এবং কালো রঙ ধারণ করে।
●রোগের আক্রমণ গাছের নিচের দিকে বেশী দেখা যায়।
●আক্রান্ত স্থানের কোষ হলুদ রঙ ধারণ করে ও পঁচে যায় এবং কান্ডের ভিতর দিকে অগ্রসর হতে থাকে।
●বেশী আক্রান্ত গাছ মলিন হয়ে যায় এবং কোন ফল ধারণ করে না।
●অল্প বয়সী গাছ আক্রান্ত হলে বেশী ক্ষতি হয়ে থাকে।
●কান্ডের ভিতরের নরম কোষ পচে যাওয়ায় কান্ডের ভিতর একটি গর্তের সৃষ্টি হয়।
●পচন নিচের দিকে অগ্রসর হতে থাকে। কান্ডের ভিতর ফাঁকা হয়ে যায়।
●প্রচন্ড ঝরে এরূপ রোগাক্রান্ত গাছ ভেঙ্গে পড়ে।

রোগের প্রতিকার:
●গাছে সুষম সার প্রয়োগ করতে হবে।
●অতিরিক্ত পানি নিষ্কাশনের সুব্যবস্থা রাখতে হবে।
●আক্রান্ত স্থানের পচে যাওয়া কোষগুলো কিছু ভাল জায়গাসহ ছুরি দিয়ে কেটে পরিষ্কার করতে হবে। এরপর আগুন দিয়ে আক্রান্ত স্থান হালকাভাবে পোড়াতে হবে এবং বোর্দো পেষ্টের (প্রতি লিটার পানিতে ১০০ গ্রাম তুতে ও ১০০ গ্রাম চুন) প্রলেপ দিতে হবে।
●গর্ত  আগুন দিয়ে হালকাভাবে পোড়াতে হবে এবং গরম আলকাতরার সংগে কাঠের গুড়া মিশিয়ে গর্ত বন্ধ করতে হবে।
========================================
লেখক:উর্ধ্বতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা (উদ্ভিদ রোগতত্ত্ব)
মসলা গবেষণা কেন্দ্র, বিএআরআই
শিবগঞ্জ, বগুড়া।
মোবাইলঃ ০১৯১১-৭৬২৯৭৮
ইমেইলঃ This email address is being protected from spambots. You need JavaScript enabled to view it.