Saturday, 18 November 2017

 

DLS-এর বিদায়ী মহাপরিচালককে সম্মাননা ওবং নয়া মহাপরিচালকে বরণ করলো বাংলাদেশ এ্যানিমেল হাজবেন্ড্রী এসোসিয়েশন

নিজস্ব প্রতিবেদক,এগ্রিলাইফ২৪ ডটকম:২৯ নভেম্বর মঙ্গলবার প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের সদ্য অবসরে যাওয়া মহাপরিচালক কৃষিবিদ অজয় কুমার রায়কে বিদায়ী সম্মাননা এবং নবনিযুক্ত মহাপরিচালক ডা. মো: আইনুল হককে সংবর্ধনা প্রদান করলো বাংলাদেশ এ্যানিমেল হাজবেন্ড্রী এসোসিয়েশন।

বাংলাদেশ এ্যানিমেল হাজবেন্ড্রী এসোসিয়েশনের সহ সভাপতি কৃষিবিদ কালিদাস সরকারের সভাপতিত্বে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সদ্য অবসরে যাওয়া মহাপরিচালক কৃষিবিদ অজয় কুমার রায় বাংলাদেশ এ্যানিমেল হাজবেন্ড্রী এসোসিয়েশন কর্তৃক তাকে সম্মাননা জানানোর জন্য আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানান। প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের সকলের ভালোবাসা পেয়ে তিনি অত্যন্ত গর্বিত এবং ভাগ্যবানদের একজন বলে জানান। এসময় ১৯৮৩ সালে বরিশালের মেহেদীগঞ্জে তাঁর চাকুরী জীবনের প্রথম দিনগুলির কিছু স্মৃতি উল্লেখ করেন।

কৃষিবিদ অজয় কুমার রায় ডিএলএস এর সকলের সাফল্য কামনা করে বলেন ডিএলএস এর গ্রহনযোগ্যতা আরো বাড়বে। গভীর সন্তুষ্টির সাথে কাজে নিয়োজিত থাকলে তার মূল্যায়ন অবশ্যই হবে।

অনুষ্ঠান আয়োজনের জন্য বাংলাদেশ এ্যানিমেল হাজবেন্ড্রী এসোসিয়েশন সহ সংশ্লিষ্ট সকলকেই অভিনন্দন ও কৃতজ্ঞতা জানান নবনিযুক্ত মহাপরিচালক ডা. মো: আইনুল হক। তিনি বলেন, কৃষিবিদ অজয় কুমার রায়ের মতো সৎ, নীতিবান, কর্মঠ ব্যক্তিত্ব পাওয়া আজ বিরল। সমাজের জন্য এ ধরনের মানুষের আজ বড় প্রয়োজন। নয়া মহাপরিচালক বলেন দায়িত্বপ্রাপ্ত হওয়ার পর থেকেই কিভাবে DLS এর গতিশীলতা আরো বৃদ্ধি করা যায় সে ব্যাপারে তিনি মনোনিবেশ করেছেন। লাইভস্টকের উন্নয়নের মাধ্যমে দেশ জাতি সহ সকলের কল্যাণে নিজের শ্রমকে নিয়োজিত করতে পারলে নিজেকে সার্থক বলে মনে করবেন ডা. মো: আইনুল হক। এজন্য তিনি সকলের কাছেই সহযোগীতা কামনা করেন।

বাংলাদেশ এ্যানিমেল হাজবেন্ড্রী এসোসিয়েশনের সমাজকল্যাণ সম্পাদক কৃষিবিদ জনাব শাহজামাল খান তুহিন বলেন, সদ্য অবসরে যাওয়া মহাপরিচালক কৃষিবিদ অজয় কুমার রায়ের কথা তারা চিরদিন স্মরণ করবেন বিশেষ করে মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের মঙ্গলের জন্য তিনি যে অবদান রেখে গেছেন তাঁর প্রতি তারা সকলেরই আন্তরিকভাবে কৃতজ্ঞ। নবনিযুক্ত মহাপরিচালকের প্রতি আন্তরিক অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়ে কৃষিবিদ তুহিন বলেন তার কর্মদক্ষতা DLS- কে আরো এগিয়ে নিয়ে যাবে । প্রস্তাবিত অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়নের মাধ্যমে তিনি এর গতিশীলতা আরো বৃদ্ধি করতে ভূমিকা রাখবেন।

এভোন এনিম্যাল হেলথ্ এর কৃষিবিদ জনাব মাহবুব হাসান বলেন ২০২১ সালের মধ্যে ডিম ও ব্রয়লার মাংশের পরিমান যাতে দ্বিগুন বৃদ্ধি করা যায় সেলক্ষে প্রাইভেট সেক্টর সরকারের সহযোগিতায় নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে।। নতুন ডিজি প্রাইভেট সেক্টরের সাথে আরো জোরদারভাবে কাজ করবেন বলে আশা করেন। এসময় তিনি বাংলাদেশ ওয়ানডে ক্রিকেট দলের অধিনায়ক ও ডানহাতি ফাস্ট বোলার মাশরাফি বিন মর্তুজা এবং জনপ্রিয় মডেল ও অভিনেত্রী বিদ্যা সিনহা মিম এই দুজনকে ওয়াপসা-বিবি’র পক্ষে ডিম ও ব্রয়লার মাংস গ্রহনে জণগণকে উদ্বুদ্ধ করণের কাজে ২০১৬-২০১৭ এর জন্য ব্র্যান্ড এম্বাসেডর নিযুক্ত হওয়ার সুখবরটি জানান।

বি.এল.আর.আই এর সাবেক মহাপরিচালক ড. কাজী এমদাদুল হক বলেন বিদায়ী ডিজি অনেক অবদান রেখে গেছেন আর বর্তমান ডিজি আরো অবদান রাখবেন্ তাঁর প্রজ্ঞা, মেধা দক্ষতার মাধ্যমে।

বিসিএস লাইভস্টক ক্যাডার এসোসিয়েশন এর মহাসচিব ডা. দিলীপ কুমার ঘোষ, বলেন অধিদপ্তরের গতি ও কর্মধারাকে আরো এগিয়ে নিয়ে যাবেন ডিএলএস এর নয়া ডিজি। তিনি সাবেক মহাপরিচালকের সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘজীবন কামনা করেন। সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ড. আব্দুল বাসেত অনুষ্ঠানে আসতে পেরে আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান। ডিপ্লোমা কর্মচারী এসোসিয়েশন এর সভাপতি জনাব জসিম উদ্দিন বলেন অসামাপ্ত কাজগুলি সফলভাবে করার জন্য নতুন ডিজি’র প্রতি অনুরোধ জানান।

স্বল্প সময়ের মধ্যে প্রস্তাবিত অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়ন করার জোর দাবি জানান বাংলাদেশ এ্যানিমেল হাজবেন্ড্রী এসোসিয়েশনের মহাসচিব আবু সাইদ মো:কামাল (বাচ্চু)। তিনি অনুষ্ঠানে সহযোগিতা করার জন্য স্পন্সরসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।

অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ এ্যানিমেল হাজবেন্ড্রী এসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে কৃষিবিদ অজয় কুমার রায়কে শুভেচ্ছা সম্মাননা উপহার দেন নির্বাহি সদস্য কৃষিবিদ লুৎফর রহমান এবং নতুন ডিজিকে শুভেচ্ছা উপহার দিয়ে বরণ করে নেন কোষাধ্যক্ষ কৃষিবিদ মাহবুব হাসান।

প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের মহাপরিচালকদ্বয়ের বিদায় ও বরণ অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধে আরো উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ এ্যানিমেল হাজবেন্ড্রী এসোসিয়েশনের নির্বাহি সদস্য কৃষিবিদ জনাব এসএমএ সামাদ, নির্বাহি সদস্ কৃষিবিদ জনাব আরিফুল ইসলাম শাহীন, যুগ্ম-মহাসচিব কৃষিবিদ জনাব লিয়াকত আলী (জুয়েল), বিভিএ এর নেতৃবৃন্দ, শ্রেষ্ঠ ফিডের ডিএমডি কৃষিবিদ জনাব ইউনুছ আলী, নারিশ পোলট্রি’র কৃষিবিদ চিরঞ্জীব সাহা, কৃষিবিদ জনাব তৌহিদুল ইসলাম প্রমুখ।

অনুষ্ঠানটির সঞ্চালনার দায়িত্বে ছিলেনয কৃষিবিদ অনিমা রাণী বিশ্বাস এবং স্পন্সর করে শ্রেষ্ঠ ফিড, নারিশ, এভোন ও ইউরো কোলা।