Sunday, 19 November 2017

 

রাবিতে মৎস্য আহরণ-পরবর্তী নিরাপত্তা ও স্বাস্থ্যসম্পর্কিত বিষয়ে আন্তর্জাতিক সম্মেলন শুরু

এস.এম.আল-আমিন,রাবি সংবাদদাতা:রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) বুধবার থেকে মৎস্য আহরণ-পরবর্তী নিরাপত্তা ও স্বাস্থ্যসম্পর্কিত বিষয়ে এক আন্তর্জাতিক সম্মেলন শুরু হয়েছে। এদিন সকালে বিশ্ববিদ্যালয় সিনেট ভবনে ‘সেফটি এন্ড হাইজিন ইস্যুজ ইন ফিসারিজ পোস্ট হারভেস্ট: এ্যামফ্যাসিস অন ড্রায়েড ফিসারি প্রোডাক্টস’ শীর্ষক দুই দিনব্যাপী এই সম্মেলন উদ্বোধন করেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য প্রফেসর চৌধুরী সারওয়ার জাহান।

এই অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বিশ্বব্যাংকের অর্থায়নে বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের মাধ্যমে বাস্তবায়নাধীন উচ্চশিক্ষার মানন্নোয়ন প্রকল্প (হেকেপ)-এর প্রকল্প পরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) ড. গৌরাঙ্গ চন্দ্র মহান্ত এনডিসি ও রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় কৃষি অনুষদের অধিকর্তা প্রফেসর মো. সাইফুল ইসলাম। সম্মেলনের আহ্বায়ক ফিশারীজ বিভাগের সভাপতি প্রফেসর মুহাম্মদ আফজাল হুসাইনের সভাপতিত্বে এই অনুষ্ঠানে বিভাগের প্রফেসর এম মঞ্জুরুল আলম স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন। সম্মলনের সাংগঠনিক সচিব প্রফেসর ফৌজিয়া এদিব ফ্লোরা বিভাগের হেকেপ উপ-প্রকল্পের কার্যক্রম সম্পর্কে বক্তৃতা করেন।

সম্মেলনে মালয়েশিয়ার কেবাংসাং বিশ্ববিদ্যালয়ের স্কুল অব এনভায়ারনমেন্টাল ন্যাচারাল রিসোর্স সায়েন্সেস ফুড প্রসেসিং ল্যাব-এর প্রধান ড. মোহাম্মদ ইউসুফ মাসকাট ও ফিশ বায়োলজি ল্যাব-এর শিক্ষক ড. সিমোন কুমার দাস; ভারতের বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের প্রফেসর ড. সুশান্ত কুমার চক্রবর্তী এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রাণিবিদ্যা বিভাগের প্রফেসর ড. মো. নোয়ামুল নাসের প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন।

সম্মেলনের একাডেমিক সেশনসমূহে ১০টি প্রবন্ধ উপস্থাপিত হবে বলে নির্ধারিত আছে। এতে বাংলাদেশ ও বিদেশে থেকে সংশ্লিষ্ট ক্ষেত্রের শতাধিক শিক্ষক, গবেষক, শিক্ষার্থী ও পেশাজীবী অংশ নিচ্ছেন।

বিভাগের শিক্ষক ড. মো. তারিকুল ইসলাম ও ড. সৈয়দা নুসরাত জাহান সম্মেলনের উদ্বোধন অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করেন।