Friday, 20 July 2018

 

“বাংলাদেশে কৃষি রূপান্তর-পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশীপ” শীর্ষক গোল টেবিল আলোচনা অনুষ্ঠিত

এগ্রিলাইফ২৪ ডটকম:“বাংলাদেশে কৃষি রূপান্তর-পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশীপ” শীর্ষক এক গোল টেবিল আলোচনা রবিবার ২৪ ডিসেম্বর রবিবার বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিলের কনফারেন্স রুমে অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিলের নিবাহি চেয়ারম্যান ড. ভাগ্য রাণী বণিকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) উপাচার্য প্রফেসর ড. মো: আলী আকবর।

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের আয়োজনে এবং বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিল ও এসিআই এগ্রিবিজনেস এর সহযোগিতায় অনুষ্ঠিত এ গোল টেবিল আলোচনা অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বাউরেস পরিচালক প্রফেসর ড. এম. এ. এম. ইয়াহিয়া খন্দকার এবং আলোচনার সূচনা করেন এসিআই এগ্রিবিজনেস এর অ্যাডভাইজার প্রফেসর ড. লুৎফর রহমান।

গোল টেবিল আলোচনার প্রধান অতিথি বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) উপাচার্য প্রফেসর ড. মো: আলী আকবর বলেন কৃষির গুরুত্ব এ দেশে সব সময়ে থাকবে। এজন্য কৃষি শিক্ষা, গবেষনাগুলোকে যথাযথভাবে কাজে লাগাতে হবে। তিনি বলেন কারিগরী প্রযুক্তির কারণে দেশে কৃষি পণ্যের উৎপাদন বৃদ্ধি পেয়েছে। তবে কৃষি পণ্যের ন্যায্যমূল্য প্রাপ্তিতে কি করণীয় সেগুলি নিয়ে আরো গভীরে যাওয়া প্রয়োজন রয়েছে।

প্রধান অতিথি কৃষির বানিজ্যিকিকরণের কথা উল্লেখ করে বলেন কৃষিকে মানুষের প্রয়োজন অনুযায়ী দোরগোড়ায় নিয়ে যেতে হবে। ফুড, সেফটি ভ্যালু এ্যাডেড এসব বিষয়গুলি এখন আমাদের ভাবা বড়ই প্রয়োজন। এজন্যই এ ধরনের গোলটেবিল আলোচনার বেশী বেশী প্রয়োজন রয়েছে। এসব নিয়ে সরকারের সাথে সঠিক তথ্য সহকারে আলোচনার কথাও উল্লেখ করেন তিনি।

গোল টেবিল আলোচনার মডারেটর এমিরেটাস অধ্যাপক ও বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি প্রফেসর ড. এম. এ. সাত্তার মন্ডলের পরিচালনায় এসিআই এগ্রিবিজনেস এর ম্যানেজিং ডিরেক্টর ও সিইও ড. ফা হ আনসারী বলেন আমাদের সকলের টার্গেট হলো কৃষক এবং তাদের উন্নয়নে কাজ করতে হবে। আর কৃষকের উৎপাদনশীলতা বাড়ানো গেলে অর্থনৈতিক উন্নয়ন সম্ভব। আজকের এ আয়োজন কৃষি সেক্টরকে অনেকদূর এগিয়ে নিয়ে যাবে বলে মনে করেন ড. আনসারী।

গোল টেবিল আলোচনায় আরো অংশ নেন কৃষি সম্প্রসারণ অদিপ্তরের সাবেক মহাপরিচালক জনাব এনামুল হক, সাবেক কৃষি সচিব জনাব আনোয়ার ফারুক, বাংলাদেশ এগ্রো প্রসেসর এসোসিয়েশনের সভাপতি এএফএম ফখরুল ইসলাম মূন্সী, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকবৃন্দ, গবেষক-বিজ্ঞাণীগণ, কৃষি উদ্যোক্তা, বিভিন্ন মিডিয়া ব্যক্তিত্বগণ।।

অলোচকরা বলেন কৃষি সেক্টরে যথেষ্ট বিনিয়োগ হয়েছে। এটি আরো কিভাবে এগিয়ে নেওয়া যায় সে লক্ষেই সকলের চিন্তা চেতনাকে কাজে লাগাতে হবে। আলোচকরা আরো বলেন কৃষককে কৃষি উৎপাদনে প্রতিনিয়ত নানা ধরনের সকল চ্যালেঞ্জ ও বাধা অতিক্রম করতে হয়। আর এসব দিকগুলি তুলে ধরতে প্রাইভেট সেক্টরের গুরুত্ব অত্যাধিক।

মূল অনুষ্ঠান শুরুর পূর্বে ড. ফা হ আনসারী তার দীর্ঘদিনের অভিজ্ঞতার আলোকে লিখিত বই “রূপান্তর” এর মোড়ক উন্মোচন করা হয়।