Thursday, 14 December 2017

 

ধান গাছের খোল পঁচা রোগ সম্পর্কে ধারনা ও প্রতিকার

ড. কে, এম, খালেকুজ্জামান:ধান গাছের খোল পঁচা রোগটি এ সময়ের গরম ও স্যাঁতসোঁতে আবহাওয়ায় কৃষকের জন্য ব্যাপক দু:শ্চিন্তার কারণ হয়ে দাড়ায়।কাজেই এ রোগ সম্পর্কে ধারনা না থাকলে কৃষকরা আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়তে পারেন। এ রোগ সম্পর্কে ধারনা, দমন ও করণীয় সম্পর্কে লিখেছেন বিশিষ্ট বিজ্ঞানী ড. কে, এম, খালেকুজ্জামান।

রোগের নাম: খোল পঁচা রোগ (Sheath rot)
রোগের কারণ: স্যারোক্লেডিয়াম ওরাইজি (Sarocladium oryzae) নামক ছত্রাক দ্বারা হয়ে থাকে।
রোগের বিস্তার:এটা বীজবাহিত। রোগাক্রান্ত নাড়া ও বিকল্প পোষকে অবস্থান করে। মাজরা পোকা ও টুংরো রোগ আক্রান্ত গাছে এই রোগের প্রাদুর্ভাব বেশি হয়। গরম ও স্যাঁতসোঁতে আবহাওয়ায় এ রোগ বৃদ্ধি পায়। বৃষ্টির ঝাপটায় এ রোগ ছড়ায়। খোলপঁচা রোগটি সব মৌসুমেই দেখা যায়। সাধারনতঃ গাছের থোর অবস্থায় এ রোগটির উপযোগী সময়।

রোগের লক্ষণ:

  • রোগটি কোন অবস্থাতেই পাতায় হয় না।
  • খোলপঁচা রোগটি যে কোন খোলে হতে পারে তবে শুধুমাত্র ডিগ পাতার খোল আক্রান্ত হলেই ক্ষতি হয়ে থাকে।
  • ধানে থোড় আসার সময় এই রোগের আক্রমণ দেখা যায়।
  • প্রথমে শেষ পাতার খোলের উপর গোলাকার বা অনিয়মিত লম্বা দাগ হয়।
  • দাগের কেন্দ্র ধূসর ও কিনারা বাদামী রং বা ধূসর বাদামী হয়।
  • দাগগুলো একত্রে বড় হয়ে সম্পূর্ন খোলেই ছড়াতে পারে।
  • থোড়ের মুখ বা শীষ পঁচে যায় এবং গুড়া ছত্রাংশ খোলের ভিতর প্রচুর দেখা যায়।
  • রোগের আক্রমণ বেশি হলে অনেক সময় শিষ আংশিক বের হয় বা মোটেই বের হতে পারে না এবং ধান কালো ও চিটে হয়ে যায়।

রোগের প্রতিকার:

  • সুস্থ বীজ ব্যবহার করতে হবে।
  • কার্বেন্ডাজিম (অটোস্টিন) অথবা কার্বোক্সিন + থিরাম (প্রোভ্যাক্স ২০০ ডব্লিউপি) প্রতি কেজি বীজে ২.৫ গ্রাম হারে মিশিয়ে শোধন করতে হবে।
  • জমির আশপাশ পরিষ্কার রাখতে হবে।
  • সুষম সার ব্যবহার ও ইউরিয়া সার কম প্রয়োগ করতে হবে।
  • পটাশ সার উপরি প্রয়োগ করতে হবে।
  • খোল পচা দেখা দিলে জমির পানি শুকিয়ে কিছুদিন পর আবার সেচের পানি দিতে হবে।
  • প্রোপিকোনাজোল (টিল্ট ২৫০ ইসি) ১ লিটার পানিতে ১ মিলি হারে মিশিয়ে ১০ দিন পর পর ২-৩ বার স্প্রে করতে হবে।

=========================
লেখক:- উর্ধ্বতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা (উদ্ভিদ রোগতত্ত্ব)
মসলা গবেষণা কেন্দ্র, বিএআরআই
শিবগঞ্জ, বগুড়া।
Mobile No. 01911-762978; 01558-313632; 01673-632486.
E-mail: ;