Thursday, 14 December 2017

 

চাকুরী প্রার্থীদের পদচারনায় মুখরিত এগ্রো ক্যারিয়ার এক্সপো

সোহেব মাহমুদ :স্নাতক পাশ করার পর যখন চাকুরীর পিছনে ছুটে চলা আর চাকুরী পাওয়া যেন সোনার হরিণ। আর তখন চাকুরী প্রত্যাশীদের আশার প্রদীপ নিয়ে শুরু হলো ‘অ্যাগ্রো ক্যারিয়ার এক্সপো ২০১৭’। ২৯ নভেম্বর বুধবার থেকে শুরু হওয়া দুই দিনব্যাপি মেলার প্রথম দিনেই ছিল চাকুরী প্রার্থীদের উপচেপড়া ভিড়। কৃষি সেক্টরে নামীদামী প্রায় ১০০টি প্রতিষ্ঠান রাজধানীর কেআইবি চত্বরে অনুষ্ঠিত ‘অ্যাগ্রো ক্যারিয়ার এক্সপোতে অংশগ্রহন করে।

‘অ্যাগ্রো ক্যারিয়ার এক্সপো ঘুরে দেখা যায়, দেশের বিভিন্ন কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতক উত্তীর্ন ছাত্র-ছাত্রীদের পদচারনায় মুখরিত প্রতিটি স্টল। এখানে কৃষি, লাইভস্টক, ফিশারিজ ও কৃষি অর্থনীতি, এগ্রি ইঞ্জিনিয়ার সহ কৃষির সকল অনুষদের স্নাতকদের চাকুরীর সুযোগ করে দিচ্ছে কৃষিভিত্তিক প্রতিষ্ঠানগুলি।

পটুয়াখালী বিজ্ঞান প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ফিশারিজে স্নাতক ছাত্র রবিউল ইসলাম বলেন, আমি প্রায় ১৫ টি স্টলে সিভি দিয়েছি। তিনি কোম্পানির কাছে আবেদন জানান যেন ফ্রেশারদের চাকুরীতে অগ্রাধিকার দেয়া হয়। শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কৃষি অর্থনীতিতে স্নাতক উত্তীর্ন ছাত্র মামুন হোসেন বলেন, অ্যাগ্রো ক্যারিয়ার এক্সপোর মাধ্যমে আমরা আমাদের পছন্দের চাকুরীটি খুজে পেতে পারি। হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র জয় বলেন, আমি অনেক ভালো কোম্পানির নাম শুনেছি কিন্তু তাদের স্টল পাচ্ছিনা, তাই সকল কোম্পানির স্টল থাকলে ভালো হতো। বাকৃবির  এগ্রিকালচার ইঞ্জিনিয়ারিং এন্ড টেকনোলজি থেকে স্নাতক ছাত্র সাজ্জাদুর রহমান বলেন, এ সকল আয়োজন প্রত্যেক বছর করা উচিত।

এগ্রো ক্যারিয়ার এক্সপোতে অংশ নেয়া লিটন সরকার, এজিএম এইচ আর আমান গ্রুপ বলেন, সকাল থেকে ভালো সাড়া পাচ্চি এখানে ফ্রেশাদের সংখ্যা বেশি। আফতাব বহুমুখী ফার্মস লিমিটেডের দ্বায়িত্প্রাপ্ত কর্মকর্তারা বলেন এ আয়োজনের মাধ্যমে চাকুরী প্রার্থীদের মাঝে আমাদের কোম্পানীগুলোর সুযোগ সুবিধা তুলে ধরতে পারছি।

এজি এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিস লিমিটেডের জেনারেল ম্যানেজার কৃষিবিদ জাবেদ ভুইয়া বলেন, আমরা নতুন গ্রাজুয়েট বেশি পাচ্ছি, আমরা নতুনদের বেশি সুযোগ দেব। ড. সালমা সুলতানা প্রেসিডেন্ট মডেল লাইভস্টোক এডভান্সমেন্ট ফাউন্ডেশন, বলেন, এ আয়োজন অভিজ্ঞ চাকুরীপ্রার্থীদের খুজে বের করার সুযোগ দেবে। বাংলাদেশ ভেটেরিনারী কাউন্সিলের রেজিষ্ট্রার এবং বাংলাদেশ ভেটেরিনারী এসোসিয়েশনের সাবেক সেক্রেটারী জেনারেল ডা: ইমরান হোসেন খান বলেন কৃষি সেক্টরে শুধুমাত্র কৃষিবিদদের চাকুরীর সুযোগ করে দেবে এ আয়োজন। মো: আব্দুস সবুর মিয়া ম্যানেজার ইয়ন এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড, ,এগ্রো ক্যারীয়ার এক্সপো দক্ষ কৃষিবিদ তৈরির সেতু বন্ধন।

এদিকে আয়োজকদের মধ্যে অন্যতম কৃষিবিদ সালেহ মো: অলক বলেন, আমরা প্রত্যাশার চেয়ে বেশি সাড়া পেয়েছি তাই আমরা শতভাগ সফল। মো:মুকসুদদ আলম খান মুকুট যুগ্নমহাসচিব কৃষিবিদ ইন্সটিউট বলেন  এ আয়োজন সফল হলে প্রতি বছর আমরা এ আয়োজন অব্যাহত রাখব।

এর আগে সকালে ফার্মগেটের কেআইবি কমপ্লেক্সে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ‘অ্যাগ্রো ক্যারিয়ার এক্সপো ২০১৭’-এর উদ্বোধন করেন বাণিজ্যমন্ত্রী জনাব তোফায়েল আহমেদ এমপি। এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয়ের স্ট্যান্ডিং কমিটির সদস্য ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম এমপি, কৃষি মন্ত্রণালয়ের সচিব মোহাম্মদ মঈনউদ্দীন আবদুল্লাহ এবং কৃষিবিদ ও শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. কামাল উদ্দিন আহাম্মেদ প্রমুখ।

আয়োজকরা জানান, কেবল কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের জন্য প্রথমবারের মতো জাতীয় পর্যায়ের শুরু হয়েছে এই অ্যাগ্রো ক্যারিয়ার এক্সপো ২০১৭। দুই দিনব্যাপী এই এক্সপো যৌথভাবে আয়োজন করেছে কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ (কেআইবি) ও অ্যাগ্রি-বিজনেস ফর ট্রেড কম্পিটিটিভনেস প্রজেক্ট (এটিসি-পি) ক্যাটালিস্ট।

দেশের সাতটি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতোকোত্তর পর্যায়ের প্রায় সাড়ে তিন হাজার শিক্ষার্থী এ এক্সপোতে অংশ নিতে নিবন্ধন করেছে এবং এক্সপোর প্রথম দিন অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল দেড় হাজারেরও বেশি।