Friday, 24 November 2017

 

“কিংডম অব সৌদি এরাবিয়া” আর্ন্তজাতিক পদক পেলেন ড. রাশেদ

এগ্রিলাইফ২৪ ডটকম:জলবায়ু ব্যবস্থাপনা বিষয়ক গবেষণার জন্য শ্রেষ্ঠ গবেষক হিসেবে সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের কৃষি শক্তি ও যন্ত্র বিভাগের চেয়ারম্যান ও সহযোগী অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ রাশেদ আল মামুন আন্তর্জাতিক পুরস্কার অর্জন করেছেন। গত বুধবার মরক্কোর রাজধানী রাবাতে অনুষ্ঠিত ইসলামিক দেশগুলোর পরিবেশ মন্ত্রীদের ৭ম সম্মেলনে জলবায়ু ব্যবস্থাপনা বিষয়ক “কিংডম অব সৌদি এরাবিয়া” পদক প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠানে বাংলাদেশের পরিবেশ ও বন উপমন্ত্রী আব্দুল্লাহ আল ইসলাম জ্যাকবসহ ৫৬ টি দেশের পরিবেশ মন্ত্রীরা উপস্থিত ছিলেন।

সৌদি আরবের পরিবেশ, পানি ও কৃষি বিষয়ক মন্ত্রী আব্দুলরহমান বিন আব্দুল মোহসেন আল ফাদলির সভাপতিত্ত্বে পদক প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে মরক্কোর প্রিন্সেস লাল্লা হাসনা ও বিশেষ অতিথি-ইসলামিক এডুকেশন সায়িন্টিফিক এন্ড কালচারাল অর্গানাইজেশন (আইসেসকো)র মহাপরিচালক ড. আব্দুল আজিজ ওথমেন অল্টওয়াইজরি, ওআইসি এর সেক্রেটারি জেনারেল ইউসুফ বিন আহাম্মদ আল উথাইমিন, মাল্টার প্রেসিডেন্ট মিসেস থাবিয়ে লুইস, মালির প্রেসিডেন্ট মিসেস আমিনাতা মাইগা, পদক প্রদান কমিটির চেয়ারম্যান ড. খলিল বিন মোসলেহ আল থাকাফি উপস্থিত ছিলেন।

ড. রাশেদ জলবায়ু ও পরিবেশ বিপর্যয় রোধের লক্ষ্যে বর্জ্য পদার্থ ব্যবহারের মাধ্যমে নবায়নযোগ্য জ্বালানীর উন্নত ব্যবহার পদ্ধতি আবিষ্কার করেন। যার ফলে বাতাসে কার্বন ডাই অক্সাইড, হাইড্রোজেন সালফাইডসহ অন্যান্য ক্ষতিকর গ্যাসের পরিমাণ  হ্রাস পাবে। এর ফলে পরিবেশ বিপর্যয়, আর্থ সামাজিক উন্নয়ন, সর্বোপরি টেকসই উন্নয়নের জন্য নবায়নযোগ্য জ্বালানীর ব্যবহার বৃদ্ধি করতে সহায়ক হবে।

উল্লেখ্য ড. রাশেদ সম্প্রতি জাপানে গবেষণায় সাফল্যের জন্য কুমামোতু বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রেসিডেন্ট পদকসহ সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের শ্রেষ্ঠ প্রকাশনা পুরষ্কার লাভ করেন।-প্রেস বিজ্ঞপ্তি