Saturday, 21 July 2018

 

বাকৃবিতে দুর্বৃত্তদের হামলায় মামলা

বাকৃবি প্রতিনিধি:বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) প্রধান ফটক সংলগ্ন নিরাপত্তা চৌকি ও কাকলী সংঘের কার্যালয়ে দুর্বৃত্তরা ভাঙচুর করেছে। ভাঙচুরের হাত থেকে রক্ষা পায়নি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবিও। ওই ঘটনায় অজ্ঞাত নামে মামলা করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, ময়মনসিংহের বলাশপুর ও কেওয়াটখালীর স্থানীয় দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের জেরে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের সামনে ১০০-১৫০ জন দুর্বৃত্তরা লাঠি-সোটা, চাপাতিসহ বিভিন্ন ধারালো অস্ত্র নিয়ে রাস্তায় ভাঙচুর করতে থাকে। এসময় বেশ কিছু ইজিবাইক, মোটরবাইক ও দোকানপাট ভাঙচুর করে। পরে তারা তালা ভেঙ্গে কাকলী সংঘ কার্যালয়ের ভিতরে প্রবেশ করে। দুবৃত্তরা কার্যালয়ের আসবাবপত্র ভাঙচুর ও প্রয়োজনীয় কাগজপত্র নষ্ট করে ফেলে। ভাঙচুর থেকে রক্ষা পায়নি দেয়ালে টাঙ্গানো প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবিও। তবে ঘটনাস্থলে ক্লাবের কোনো সদস্য না থাকায় কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি।

ঘটনার পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. মো. আতিকুর রহমান খোকন ও কোতোয়ালী থানার ওসি ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন। এই ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাত ১০ টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তা শাখা থেকে একটি মামলা করা হয়।

এদিকে শুক্রবার বেলা ৩ টার দিকে ওই ঘটনায় হামলাকারীদের গ্রেফতার ও শাস্তি দেয়ার জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের বাসভবনের সামনে বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা ছাত্রলীগ।
 
বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. মো. আতিকুর রহমান খোকন বলেন, এ বিষয়ে মামলা করা হয়েছে। বিষয়টি দ্রুত সমাধানের জন্য জেলা প্রশাসনের সাথে কথা বলা হয়েছে।  

ময়মনসিংহ কোতোয়ালী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত অফিসার মো. মাহমুদুল ইসলাম বলেন, আসাদ ও নয়ন নামে দুইজন সন্দেহভাজনকে আটক করা হয়েছে এবং বাকিদেও ধরার ব্যাপাওে চেষ্টা চলছে।