Saturday, 21 July 2018

 

কৃষক পর্যায়ে মাস্কমেলন ফলটি জনপ্রিয় হওয়া সম্ভব-মত বিনিময় সভায় গবেষকরা

কৃষি গবেষণা ডেস্ক:দেশীয় জাতের তুলনায় স্বাদ, পুষ্টি ও অর্থনৈতিক ভাবে লাভজনক হওয়ায় কৃষক পর্যায়ে মাস্কমেলন ফলটি জনপ্রিয় হওয়া সম্ভব। বরেন্দ্র অঞ্চলসহ বাংলাদেশের সর্বত্র বাণিজ্যিকভাবে চাষাবাদ করার জন্য গবেষণা কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলে গবেষকরা আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

০৪ মে বৃহস্পতিবার এক্সিম ব্যাংক কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (ইবিএইউবি)-এর অডিটোরিয়ামে সাংবাদিকদের সাথে একটি মত বিনিময় সভায় এ তথ্য জানানো হয়। উক্ত অনুষ্ঠানে  উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় উপাচার্য প্রফেসর এবিএম রাশেদুল হাসান সহ বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার (চ.দা.), রেজিষ্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) এবং অনান্য শিক্ষকবৃন্দ।

সম্প্রতি ড. মোঃ মাহাবুবুর রহমানের নেতৃত্বে বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক পরীক্ষামূলক ভাবে বিশ্ববিদ্যালয়ের মাঠে মাস্কমেলন চাষাবাদ শুরু করেছেন। মত বিনিময় সভায় আরো জানানো হয় মাস্কমেলন (Muskmelon) একটি Cucarbitaceae পরিবারের অন্তর্গত পুষ্টি গুণ সমৃদ্ধ অর্থকরী ফল। এটি জালিকাকার ত্বকযুক্ত গোলাকার ফল যার ওজন ৮০০ থেকে ১২০০ গ্রাম হয়ে থাকে। খেতে সুস্বাদু এই ফলটি রোপনের ১১০-১৩০ দিনের মধ্যে সংগ্রহ করা যায়। এটি জাপান, অষ্ট্রেলিয়াসহ ইঊরোপ ও আমেরিকাতে সুস্বাদু ফল হিসাবে বহুল প্রচলিত। ফাইবার সমৃদ্ধ শর্করা থাকায় রক্তের গ্লুকোজের মাত্রা বৃদ্ধি নিয়ন্ত্রন করে বিধায় এই ফল ডায়াবেটিক রোগীর জন্য উপকারী। রক্ত চাপ নিয়ন্ত্রণ করে এবং ভিটামিন A, B ও C সমৃদ্ধ হওয়ায় দৃষ্টি শক্তি ও রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।

পুষ্টিমানঃ (১০০ মি. লি.)
মোট ক্যালরি ৫৩ কিলোক্যালরি, প্রোটিন ১ গ্রাম, ডাইটারি ফাইবার ১ গ্রাম, সোডিয়াম ২৩ মিলিগ্রাম, ভিটামিন সি ৫৭ মিলিগ্রাম, ক্যালসিয়াম ১৪ মিলিগ্রাম , ম্যাগনেসিয়াম ১৯ মিলিগ্রাম, পটাসিয়াম ৪১৭ মিলিগ্রাম, ক্যারোটেনরেড ৩২.১৯ মাইক্রোগ্রাম।-সংবাদ বিজ্ঞপ্তি