Sunday, 19 November 2017

 

Venus International Foundation এর সায়েন্টিস্ট পুরষ্কার পেলেন সিকৃবি'র ড. মোঃ মাছুদুর রহমান

নুপুর ধর, সিকৃবি থেকে:ভেটেরিনারি সায়েন্স শাখায় গবেষণায় গুরুত্বপূর্ণ অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ ২০১৬ সালের ইন্ডিয়ান ভেনাস ইন্টারন্যাশনাল ফাউন্ডেশনের আউটস্ট্যান্ডিং সায়েন্টিস্ট পুরষ্কার পেয়েছেন বাংলাদেশী বিজ্ঞানী প্রফেসর ড. মোঃ মাছুদুর রহমান।

গত ৩রা ডিসেম্বর চেন্নাইয়ের লা রয়্যাল মেরিডিয়ান হোটেলে এক অনাড়ম্বর অনুষ্ঠানে প্রফেসর ড. মোঃ মাছুদুর রহমানের হাতে সেরা গবেষণার স্বীকৃতি স্বরূপ ব্রোঞ্জ মেডেল, সনদপত্র তুলে দেন ভেনাস ইন্ট্যারন্যাশনাল ফাউন্ডেশন এর চেয়ারম্যান ড. রামাকৃষ্ণা সতিশ কুমার।

প্রফেসর ড. মোঃ মাছুদুর রহমান ১০ ডিসেম্বর ১৯৭৬ সালে বগুড়া জেলার শাজাহানপুর থানার অন্তর্গত নারছি গ্রামে জন্ম গ্রহন করেন। তিনি ১৯৯১ সালে বগুড়ার ডেমাজানি শ. ম. র. উচ্চ বিদ্যালয় থেকে প্রথম শ্রেণিতে (স্টার মার্কসসহ) এস.এস.সি এবং ১৯৯৩ সালে ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল এন্ড কলেজ থেকে প্রথম শ্রেণিতে এইচ.এস.সি পাস করেন।

তিনি সাফল্যের সাথে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ১৯৯৭ সালে প্রথম শ্রেণিসহ ডিভিএম (ডক্টর অফ ভেটেরিনারী মেডিসিন )ডিগ্রি এবং ২০০১
সালে প্যাথলজি বিষয়ে মাস্টার্স ডিগ্রি অর্জন করেন। বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষাজীবন শেষে তিনি ২০০১ সালে বাংলাদেশ প্রাণী সম্পদ গবেষণা প্রতিষ্ঠানে বিজ্ঞানী হিসাবে যোগদান করেন। পরবর্তীতে তিনি ২০০৩ সালে সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে (তদানীন্তন সিলেট সরকারি ভেটেরিনারী কলেজ) সহকারী প্রফেসর হিসাবে যোগদান করেন।

প্রফেসর ড মোঃ মাছুদুর রহমান ২০০৮ সাল হতে ২০১১ সাল পর্যন্ত দক্ষিন কোরিয়ার বিখ্যাত চুনবুক ন্যাশনাল বিশ্ববিদ্যালয়ের মাইক্রোবায়োলজি এন্ড ইমিঊনোলজি এর উপর গবেষণায় নিয়োজিত হন এবং ২০১১ সালে পি এইচ ডি ডিগ্রি লাভ করেন। পরবর্তীতে তিনি দক্ষিন কোরিয়ায় পোষ্ট ডক্টরাল গবেষক হিসাবে কাজ করেন। তিনি ২০১৩ সালে সিনিয়র রিসার্চ সায়েনটিস্ট হিসাবে চেক প্রজাতন্ত্রের ভেটেরিনারি রিসার্চ ইন্সটিটিউট এ যোগদান করেন এবং সালমোনেলা রোগের ভ্যাক্সিন আবিস্কারের উপর গবেষণার কাজ সাফল্যের সাথে সম্পূর্ণ করেন।

একজন সফল বিজ্ঞানী হিসাবে এখন পর্যন্ত বিভিন্ন দেশীয় এবং আন্তর্জাতিক জার্নালে তার ৪৩টির অধিক গবেষণা প্রবন্ধ এবং আমেরিকার মেডক্রাব প্রকাশনী হতে একটি বই প্রকাশিত হয়েছে। প্রফেসর ড মোঃ মাছুদুর রহমান বর্তমানে সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্যাথলজি বিভাগে অধ্যাপনার কাজে নিয়োজিত আছেন।

উল্লেখ্য, প্রতি বছর জ্ঞান-বিজ্ঞানের বিভিন্ন শাখায় অসাধারণ গবেষণার স্বীকৃতি স্বরূপ বিশ্বের সেরা গবেষকদের হাতে এই পুরস্কার দিয়ে থাকে ইন্ডিয়ান ভেনাস ইন্টারন্যাশনাল ফাউন্ডেশন।