Monday, 18 December 2017

 

প্রফেসর ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খান বাকৃবির প্রো-ভাইস-চ্যান্সেলর নিযুক্ত

এগ্রিলাইফ ডেস্ক: মহামান্য রাষ্ট্রপতি ও বিশ্ববিদ্যালয়ের চ্যান্সেলর  আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন পশুপুষ্টি বিজ্ঞানী, বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ প্রফেসর ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খান-কে ২২জানুয়ারি ২০১৭ তারিখে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রো-ভাইস-চ্যান্সেলর হিসেবে আগামী ৪(চার) বছরের জন্য নিয়োগ দান করেছেন।  

প্রফেসর ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খান বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের পশুপালন অনুষদের ডীন এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম প্রো-ভাইস-চ্যান্সেলর। এর আগে তিনি এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রবিষয়ক উপদেষ্টা ও পশুপালন  অনুষদের অন্যতম প্রবীণ প্রফেসর হিসাবে পশুপুষ্টি বিভাগে কর্মরত ছিলেন।

প্রফেসর ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খান ১৯৫২ সনের ০১ মে গাজীপুর জেলার সদর উপজেলায় এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেন। তাঁর পিতা বিশিষ্ট সমাজসেবি  মরহুম আব্দুল লতিফ খান ও মাতা জরিনা খাতুন।

শিক্ষা জীবনে কৃতিত্বের অধিকারী প্রফেসর ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খান ১৯৭৪ সনে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের পশু পালন অনুষদ থেকে কৃতিত্বের সাথে বিএসসি ইন এএইচ (অনার্স) এবং ১৯৭৫ সালে এমএসসি(এ.এইচ.) ইন এনিম্যাল নিউট্রিশন ডিগ্রী লাভ করেন। পরবর্তীতে  রাশিয়ার সেন্ট পিটার্সবার্গ এর এগ্রিকালচারাল ইনস্টিটিউট থেকে ১৯৮৭ সনে পিএইচ.ডি ও ১৯৯৩ থেকে ২০১১ পর্যন্ত জার্মানী, জাপান,অস্ট্রিয়া এবং যুক্তরাজ্যে একাধিকবার পোস্ট ডক্টরেট অর্জন করেন।

প্রফেসর ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খান ১৯৭৬ সনের অক্টোবরে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের পশু পুষ্টি বিভাগে শিক্ষক হিসেবে যোগদান করেন। পরবর্তীতে আগস্ট ১৯৯৫ সনে প্রফেসর পদে উন্নীত হন। প্রফেসর ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খান বহু জাতীয় ও আন্তর্জাতিক সেমিনার, সিম্পোজিয়াম, ওর্য়াকশপ ও কনফারেন্সে যোগদান করে গবেষণালব্ধ প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন এবং বিভিন্ন টেকনিক্যাল সেশনে চেয়ারপারসনের দায়িত্ব পালন করেন। ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খানের পশুপালন সংশ্লিষ্ট ২টি বইসহ পশুপুষ্টির ওপর শতাধীক গবেষণামূলক প্রবন্ধ জাতীয় ও আন্তর্জাতিক জার্ণালে প্রকাশিত হয়েছে।  তিনি গবেষণা ও শিক্ষা সংক্রান্ত কাজে পৃথিবীর বহু দেশ ভ্রমণ করেছেন।

বর্ণাঢ্য কর্মজীবনের অধিকারী প্রফেসর ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খান বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত ভাইস-চ্যান্সেলর, বাকৃবির সিন্ডিকেট সদস্য, ডীন কাউন্সিলের কনভেনর, পশু পুষ্টি বিভাগীয় প্রধান, হল প্রভোস্ট, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক, ছাড়াও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা ও গবেষণা কাজের পাশাপাশি বিভিন্ন কমিটিতে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেন। তিনি পশুপুষ্টি বিষয়ে বিশেষজ্ঞ হিসেবে  বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়, শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন-এ  কাজ করেছেন।

একজন নিবেদিত প্রাণ শিক্ষাবিদ পশুপুষ্টি বিজ্ঞানী প্রফেসর ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খান  বাংলাদেশ জার্ণাল অভ এনিম্যাল সায়েন্স এর এডিটর, জার্মান একাডেমিক এক্সেঞ্জ সার্ভিস এর কো-অর্ডিনেটর, বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের সিলেকশন কমিটির সদস্য, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সদস্য, বাকৃবির মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শিক্ষক সংগঠন গণতান্ত্রিক শিক্ষক ফোরামের এডভাইজারী কমিটির সদস্য, কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাকৃবি লোকাল চ্যাপ্টার এর সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। এ ছাড়াও তিনি বিভিন্ন জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পেশাগত সংগঠনের কার্যক্রমের সাথে জড়িত।

ব্যক্তিগত জীবনে প্রফেসর ড. মোঃ জসিমউদ্দিন খান বিবাহিত এবং দুই সন্তানের জনক।-প্রেস বিজ্ঞপ্তি